web analytics

গোয়েন্দা কাহিনী > পাণ্ডব গোয়েন্দা সমগ্র

পাণ্ডব গোয়েন্দা হল ষষ্ঠীপদ চট্টোপাধ্যায় রচিত কাল্পনিক চরিত্র। এই গোয়েন্দাবাহিনী পাঁচজন কিশোর-কিশোরী নিয়ে গঠিত। এই দলে এক কুকুর আছে। দুঃসাহসী পাঁচটি ছেলেমেয়ে ও একটি কুকুর নিয়ে গঠিত পান্ডব গোয়েন্দারা নানারকম রোমাঞ্চকর অভিযান করে। কখোনো নিজেরাই ঘটনায় জড়িয়ে যায়, আবার কখোনো কারো সাহায্যার্থে তারা ঝাঁপিয়ে পড়ে বিপদের মুখে। ভারতের বিভিন্ন জায়গায় এই দল গোয়েন্দাগিরি চালিয়েছে। পাণ্ডব গোয়েন্দা প্রথম প্রকাশিত হয়েছিল ১৯৭০ সালে মাসিক শুকতারা পত্রিকায়। তারপর আনন্দমেলা পুজো সংখ্যাতেও পাণ্ডব গোয়েন্দার উপন্যাস বেরিয়েছে। পাণ্ডব গোয়েন্দার একাধিক ছোটগল্প ও উপন্যাস শিশু কিশোরদের কাছে সবিশেষ জনপ্রিয়তা পায়। এবার পরিচিত হয়ে নিন পাণ্ডব গোয়েন্দার সদস্যদের সাথে।
বাবলু: সবচেয়ে বড় সদস্য। এই চরিত্র মূল নায়ক। সে পিস্তল চালাতে পারে এবং লাইসেন্সকৃত পিস্তল থাকে তার কাছে।
বিলু: এটি দ্বিতীয় মুখ্য চরিত্র। সাহসী, বিচক্ষণ এবং বাবলুর অবর্তমানে বিলু দলকে একাধিকবার পরিচালনা করেছে যদিও তা সাময়িক।
ভোম্বল: খাদ্য রসিক চরিত্র। সকল কাজের কাজী। আরামপ্রিয়।
বাচ্চু: প্রধান নারী চরিত্র, বিচ্ছুর দিদি।
বিচ্ছু: দ্বিতীয় নারী চরিত্র, বাচ্চুর ছোট বোন। এই চরিত্র সবার চেয়ে বয়সে ছোট।
পঞ্চু: এই কুকুর পাণ্ডব গোয়েন্দাদের সাথী। প্রয়োজনে হিংস্র, বুদ্ধিমান দেশী কুকুর। বহু ক্ষেত্রে পঞ্চুই জয় এনে দিয়েছে পান্ডব গোয়েন্দাদের অভিযানে। পঞ্চুর এক চোখ কানা। তাকে প্রথম গল্পে কানা পঞ্চু বলে পরিচয় দেওয়া ছিল।
পাণ্ডব গোয়েন্দা সমগ্র ০১
পাণ্ডব গোয়েন্দা সমগ্র ০২
ত্রিশ খণ্ডে পাণ্ডব গোয়েন্দা

© ভারতীয় কপিরাইট আইন, ১৯৫৭ অনুসারে সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত

এই বইটির স্বত্বাধিকার লেখক বা লেখক নির্ধারিত ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের, অর্থাৎ বইটি পাবলিক ডোমেইনের আওতাভূক্ত নয়৷ কেননা, যে সকল বইয়ের উৎস দেশ ভারত এবং ভারতীয় কপিরাইট আইন, ১৯৫৭ অনুসারে, লেখকের মৃত্যুর ষাট বছর পর স্বনামে ও জীবদ্দশায় প্রকাশিত অথবা বেনামে বা ছদ্মনামে ও মরণোত্তর প্রকাশিত রচনা বা গ্রন্থসমূহ প্রথম প্রকাশের ষাট বছর পর পঞ্জিকাবর্ষের সূচনা থেকে কপিরাইট মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে যায়৷ অর্থাৎ, ১ জানুয়ারি, 2019 সাল হতে 1959 সালের পূর্বে প্রকাশিত (বা পূর্বে মৃত লেখকের) সকল রচনা পাবলিক ডোমেইনের আওতাভুক্ত হবে। এবং 1959 সালের পরে প্রকাশিত বা মৃত লেখকের বইসমূহ পাবলিক ডোমেইনের আওতাভূক্ত হবে না৷

আইনি সতর্কতা

প্রকাশক এবং স্বত্বাধিকারীর লিখিত অনুমতি ছাড়া এই বইয়ের কোনও অংশেরই কোনওরূপ পুনরুৎপাদন বা প্রতিলিপি করা যাবে না, কোন যান্ত্রিক উপায়ের (গ্রাফিক, ইলেকট্রনিক বা অন্য কোনও মাধ্যম, যেমন ফটোকপি, টেপ বা পুনরুদ্ধারের সুযোগ সম্বলিত তথ্য-সঞ্চয় করে রাখার কোনও পদ্ধতি) মাধ্যমে প্রতিলিপি করা যাবে না বা কোন ডিস্ক, টেপ, পারফোরেটেড মিডিয়া বা কোনও তথ্য সংরক্ষণের যান্ত্রিক পদ্ধতিতে পুনরুৎপাদন করা যাবে না। এই শর্ত লঙ্ঘিত হলে উপযুক্ত আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা যাবে।

Leave a Reply

WhatsApp chat